GT Vs LSG, IPL 2022 Match Highlights Gujarat Titans Beats Lucknow Super Giants By 5 Wickets At Wankhede Stadium

0

[ad_1]

মুম্বই: দুই দলই আইপিএলে (IPL) নতুন। এবারই টুর্নামেন্টে অন্তর্ভুক্ত হয়েছে। আর টুর্নামেন্টে নিজেদের প্রথম ম্যাচে তারাই একে অপরের মুখোমুখি হয়েছিল। সেই ম্যাচে ৫ উইকেটে জিতল গুজরাত টাইটান্স। হারিয়ে দিল কে এল রাহুলের লখনউ সুপারজায়ান্টসকে।

এই ম্যাচ ছিল দুই ভাইয়ের লড়াইও। কারণ, গুজরাতের অধিনায়ক হার্দিক পাণ্ড্য। আর লখনউ সুপারজায়ান্টসের অন্যতম প্রধান ক্রিকেটার ক্রুণাল পাণ্ড্য। ম্যাচে হার্দিকের উইকেট তুলে নিলেন ক্রুণালই। কিন্তু শেষরক্ষা করতে পারলেন না। দাদার দলকে হারিয়ে শেষ হাসি হাসলেন ভাই হার্দিকই।

প্রথমে ব্যাট করে ১৫৮/৬ তুলেছিল লখনউ সুপারজায়ান্টস। জবাবে ২ বল বাকি থাকতে প্রয়োজনীয় রান তুলে নিল গুজরাত টাইটান্স। ২৪ বলে ৪০ রানে অপরাজিত থেকে দলের সর্বোচ্চ স্কোরার রাহুল তেওয়াটিয়া। হার্দিক ৩৩ রান করেছেন। ম্যাথু ওয়েড ও ডেভিড মিলার ৩০ রান করে করেছেন। ৭ বলে ১৫ রান অভিনব মনোহরের।

শামির আগুন

প্রথম স্পেলে মহম্মদ শামি (Mohammed Shami) তখন রুদ্রমূর্তি ধারণ করেছেন। তিন ওভার বল করে মাত্র ১০ রান খরচ করে তুলে নিয়েছেন তিন উইকেট। অন্যদিক থেকে বরুণ অ্যারন (Varun Aaron) তুলে নিয়েছেন এক উইকেট। ফিরে গিয়েছেন কে এল রাহুল (KL Rahul), কুইন্টন ডি’কক (Quintonm de Kock), মণীশ পাণ্ডেদের (Manish Pandey) মতো বড় নাম। মাত্র ২৯ রানে পড়ে গিয়েছে ৪ উইকেট।

ব্যাটে পাল্টা লড়াই

লখনউ সুপারজায়ান্টসের (LSG) অতি বড় সমর্থকও তখন ভাবতে পারেননি যে, দলের স্কোর দেড়শো পার করবে। এমনকী, ১০ ওভারের শেষে যখন লখনউয়ের স্কোর ৪৭/৪, মনে করা হচ্ছিল একশো রান তুলতেও বেগ পেতে হবে। সেখান থেকে ব্য়াট হাতে পাল্টা লড়াই করলেন দীপক হুডা (Deepak Hooda) ও আয়ুষ বাদোনি (Ayush Badoni)। দুজনই ঝকঝকে হাফসেঞ্চুরি করলেন। প্রথমে ব্যাট করে লখনউ তুলল ১৫৮/৬। ম্যাচ জিততে হলে ১৫৯ রান তুলতে হবে হার্দিক পাণ্ড্যর (Hardik Pandya) গুজরাত টাইটান্সকে (Gujarat Titans)।

হুডা ও আয়ুষের দাপট

৪১ বলে ৫৫ রান করলেন দীপক। ৪১ বলে ৫৪ রান করে আউট হন আয়ুষ। শেষ দিকে নেমে ১৩ বলে ২১ রানে অপরাজিত ছিলেন ক্রুণাল পাণ্ড্য। একসময় তাঁর সঙ্গে ঝামেলায় জড়িয়ে বঢোদরা ছেড়েছিলেন দীপক হুডা। আইপিএলে অবশ্য কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে লড়াই করে লখনউকে ভদ্রস্থ স্কোরে পৌঁছে দিলেন।

গুজরাত বোলারদের মধ্যে শামি তিন উইকেট নিয়েছেন। ২ উইকেট বরুণ অ্যারনের। এক উইকেট রশিদ খানের ঝুলিতে।টস জিতে প্রথম ফিল্ডিংয়ের সিদ্ধান্ত গুজরাতের অধিনায়ক হার্দিক পাণ্ড্যর। তবে সুযোগ পেলেন না ঋদ্ধিমান সাহা।

কেকেআরে চাকর মনে হতো! ছেড়ে দিতে স্বস্তি, এবিপি লাইভে বিস্ফোরক কুলদীপের কোচ

[ad_2]
Source link

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here